মূর্তি ভাঙার খেলা

Destroying

বীরেন্দ্রনাথ কিস্কু

স্বাধীনতা সংগ্রামীদের মূর্তি করে পদাঘাত,
স্বাধীন রাষ্ট্রের উপর এক বিশাল আঘাত।
এইসব দেশদ্রোহী মানুষেরাই সমাজের মাথা,
পরক্ষণেই বলেন দেশের বড় বড় কথা।
দেখেও দেখে না পুলিশ প্রশাসন,
পকেটের মোটা টাকা এরাই যে ভরান!
হয় না কোন দিন এদের নামে দেশদ্রোহিতার মামলা
এদের বাঁচাতে আসরে নামেন কত আমলা!!!
কার ঘাড়ে কয়টা মাথা………..
আইনের ধারালতা এদের কাছেই ভোতা।

সহজ-সরল আদিবাসী , দলিত
সর্বদায় থাকেন এদেশেতে অবহেলিত।
হোক না কেন স্বাধীনতা সংগ্রামী,
হোকনা সে সংবিধানের প্রণেতা,
এই সত্যই মানতে নারাজ তথাকথিত ভদ্র সমাজ,
তাইতো তারা মূর্তি ভাঙ্গার খেলায় নেমেছে আজ।
বীর সিধু -কানু ,ডঃ বি আর আম্বেদকর এর মূর্তি
করাঘাত, পদাঘাত দিয়ে ভাঙতে কাঁপে না যাদের হাত,
তাদের মাথার উপর আছে যে এক আশীর্বাদের হাত।

উন্মাদের মতো করেন আচরণ, বোধ বুদ্ধি যে নেই,
ইতিহাসকে কলঙ্কিত করতে দ্বিধাবোধ তাদের নেই ।
এরাই তো ছিলেন তৎকালীন ইংরেজদের তাবেদার,
হিংসা দিয়েও শাসন কায়েম করা তাদের দরকার।
জাগো আমার আদিবাসী, দলিত ভাই বোন,
অত্যাচার অবিচার আর এই শোষণ
মানবো না আর, ছিনিয়ে নেব অধিকার।
যে হাতেতে মূর্তি তারা দিয়েছে গুড়িয়ে,
ওই হাতটা দেবো আমরা তাদের গুড়িয়ে।
শাসক তুমিও হও সাবধান………
আমাদের সাথে আছে দেশের সংবিধান,
অচিরেই ছিনিয়ে নেব পরিত্রান।।